1. live@bangladeshbartabd.com : বাংলাদেশ বার্তা বিডি : বাংলাদেশ বার্তা বিডি
  2. azadnews77@gmail.com : বাংলাদেশ বার্তা বিডি : বাংলাদেশ বার্তা বিডি
  3. kazimasud01723@gmail.com : বাংলাদেশ বার্তা বিডি : বাংলাদেশ বার্তা বিডি
  4. live@www.bangladeshbartabd.com : বাংলাদেশ বার্তা বিডি : বাংলাদেশ বার্তা বিডি
  5. marahimbablu@gmail.com : Rahim :
  6. info@www.bangladeshbartabd.com : বাংলাদেশ বার্তা বিডি :
শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ১২:১৭ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
লালমাইয়ে প্রাণীসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত নাঙ্গলকোটে আমাদের আলোকিত সমাজে ঈদ পুনর্মিলনী ও কর্মশালা অনুষ্ঠিত নাঙ্গলকোটে আমাদের আলোকিত সমাজ চেয়ারম্যান কামরুল ইসলামের উদ্যোগে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত নাঙ্গলকোটে আওয়ামীলীগের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ সাংবাদিক সমিতি লালমাই উপজেলা শাখার ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত চৌদ্দগ্রামে সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া’র রোগমুক্তি কামনায় ইফতার, দোয়া মাহফিল ও নেতাকর্মীদের সংবর্ধনা নাঙ্গলকোটে পল্লী বিদ্যুতের লোডশেডিংয়ে অতিষ্ঠ জনজীবন, বোরো ধান নিয়ে শঙ্কায় কৃষক নাঙ্গলকোটে চেয়ারম্যান পার্থী আবু ইউসুফ ও ভাইস চেয়ারম্যান পার্থী আব্দুর রাজ্জাক সুমনের শোভাযাত্রা বাংলাদেশ ইয়াং এসোসিয়েশন বাহারাইনের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত মইনীয়া যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় খানকা শরীফে আলোচনা ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কেউ দাবায়া রাখতে পারবে না: কুবি ভিসি

বাংলাদেশ বার্তা বিডি ডেক্স
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ৭ মার্চ, ২০২৪
  • ৯ বার পড়া হয়েছে

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) ভিসি অধ্যাপক ড. এ এফ এম আবদুল মঈন বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বলেছিলেন আমাদের কেউ দাবায়া রাখতে পারবা না, আমরাও বলছি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়নও কেউ দাবায়া রাখতে পারবে না। বৃহস্পতিবার ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ দিবস উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।
তিনি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণের মধ্যে দিয়ে এদেশের স্বাধীনতার অধ্যায় শুরু হয়েছিল। তিনি এমন একজন নেতা, এদেশকে স্বাধীনতা এনে দেয়ার পরেও এদেশের মানুষের হাতে তাঁকে প্রাণ হারাতে হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর মত মহান নেতাকে যেকোন নামে অভিহিত করা যায় না। তিনি গণমানুষের জন্য আন্দোলন করেছেন, রাজনীতি করেছেন। আমাদের মধ্যে যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে মনেপ্রাণে বিশ্বাস করে তারা কখনো বিশ্বাসঘাতকতা করতে পারেনা, কারণ আমরা বঙ্গবন্ধুর আদর্শকেই বাস্তবায়ন করতে চাই।
তিনি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধুর যেমন কোন ব্যক্তিস্বার্থ ছিল না তেমনি এই বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগদানের পরেই আমি বলেছি আমার কোন ব্যক্তিগত স্বার্থ নেই। যোগদানের পর এখানে প্রত্যেকটি কাজ করেছি আইন মেনে, নিয়মের মধ্যে থেকে, এখানে কোন অন্যায়কে প্রশ্রয় দেয়া হয়নি। কেউ যদি কোন স্বার্থের জন্য কাজ করে সেখানে বিশ্ববিদ্যালয়ের কল্যাণের জন্য তাকে বাধা দিয়েছি। একটি শিক্ষার্থী-বান্ধব ও মানসম্পন্ন বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়কে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য অনেক পদক্ষেপ নিয়েছি। সেই কারণে আজ বিশ্ববিদ্যালয়টি জাতীয় পর্যায়ে একটি স্থান অর্জন করেছে ও তার ইমেজ বৃদ্ধি পেয়েছে। আমাদের মনে রাখতে হবে বিশ্ববিদ্যালযটি এখন আর নতুন নয়, তাই এটাকে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে হবে। এজন্য একটি চ্যালেঞ্জিং ভিশন তৈরি করতে হয় এবং তা অর্জনের জন্য কঠোর পরিশ্রম করতে হয় – এবং আমি তাই করছি। কিন্তু এখন যদি কেউ বলে আমরা এটা চাইনা, তাহলে বিশ্ববিদ্যালয় উপরে উঠবে কিভাবে? উন্নত মানের শিক্ষা, শিক্ষণ, গবেষণা, উদ্ভাবন যদি না হয় তাহলে কিভাবে আমরা লিডিং বিশ্ববিদ্যালয় হয়ে উঠব? বঙ্গবন্ধু বহু চালেঞ্জ মোকাবেলা করে এদেশকে স্বাধীন করেছিলেন, আমাদেরও প্রতিটি কাজের সফলতার পেছনে চ্যালেঞ্জ থাকে। আমি এই বিশ্ববিদ্যালয়কে লিডিং বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে গড়ে তুলতেও অবিরাম চালেঞ্জ এর মধ্য দিয়ে অগ্রসর হচ্ছি। আমি দেখেছি এখানকার সদস্যরাই নিজের বিশ্ববিদ্যালয়কে নিয়ে বাজে কথা বলে, ফেসবুকে লেখালেখি করে, এটি অন্য কোথাও আমি দেখি নাই। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের কথা বলে যদি আমরা ক্লাস না নেই, রাষ্ট্রের টাকা খরচ করে গাড়ির তেল পুড়িয়ে ঘুরে বেড়াই, তাহলে এখানে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ কোথায়? শুধু কি মুখেমুখে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের কথা বলি?
উপাচার্য এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের নিজ বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে অযথা না করে সৎ আদর্শে থাকার এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য কাজ করার আহ্বায়ন জানান।
এদিন যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি উদযাপন করে বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের সদস্যরা। দিবসটি উপলক্ষ্যে এদিন সকাল ৮টায় প্রশাসনিক ভবনের সামনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণ প্রচার করা হয়। পরে ১১টায় উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এফ এম আবদুল মঈনের নেতৃত্বে একটি র ্যালি বের করা হয়। র ্যালিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্যের পাদদেশে এসে শেষ হয়। পরে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের সদস্যরা। এসময় উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো. আসাদুজ্জামানসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


প্রশাসনের শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি, বঙ্গবন্ধু পরিষদ, ছাত্রলীগ, কর্মকর্তা এসোসিয়েশন, কর্মচারী পরিষদ ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে প্রশাসনিক ভবনের ৪১১ নং কক্ষে একটি আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এতে ব্যবস্থাপনা শিক্ষা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক জাহিদ হাসানের সঞ্চালনায় এবং ‘৭ই মার্চ দিবস-২০২৪’ উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আহসান উল্ল্যাহর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. আবদুল মঈন, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপ উপাচার্য অধ্যাপক ড. হুমায়ুন কবির, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. আসাদুজ্জামান।
আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপ উপাচার্য অধ্যাপক হুমায়ুন কবির বলেন, বঙ্গবন্ধু সত্যিকারের আজন্মা নেতা ছিলেন, যিনি জন্মগতভাবে রাজনৈতিক নেতা বলতে যা বুঝায় তাই ছিলেন। বঙ্গবন্ধু কখনো হটকারী সিদ্ধান্ত নেন নাই। অনেকে বঙ্গবন্ধুর সমালোচনা করে বলেন তিনি কেন ৭ই মার্চ কেন স্বাধীনতা ঘোষণা করেন নাই। তাদের দাবি ২৫ মার্চ পর্যন্ত পশ্চিম পাকিস্তানের হামলা, প্রাণঘাতীর শিকার হতে হয়েছে। কিন্তু বঙ্গবন্ধু যদি ৭ই মার্চ স্বাধীনতার ঘোষণা দিতেন তাহলে হয়তো পূর্ব পাকিস্তানের নাম পরিবর্তন হতো কিন্তু নিরস্ত্র বাঙালিকে নিয়ে সশস্ত্র যুদ্ধে গড়ে তুলতে পারতেন না। তিনি ৭ই মার্চ স্বাধীনতা ঘোষণা না করে, করেছেন ২৫ মার্চ। কারণ তিনি বুঝেছিলেন এভাবে বিচ্ছিন্নভাবে কোন দেশ বা সম্প্রদায় কখনো স্বাধীনতা আনতে পারে নাই। তাই বঙ্গবন্ধু হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি। এদেশের ইতিহাসে অনেক নেতা এসেছেন, নেতৃত্ব দিয়েছেন কিন্তু শ্রেষ্ঠ নেতা, শ্রেষ্ঠ বাঙালি হয়েছেন একজনেই তিনি হলেন বঙ্গবন্ধু। বঙ্গবন্ধু এই মহান ভাষণকে স্বীকৃতি দিতে ২০১৭ সালে ইউনেস্কো ৭ই মার্চের ভাষণকে “বিশ্ব প্রামাণ্য ঐতিহ্য” হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে।
এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট