1. bmsfnkot@gmail.com : Saiful :
  2. mdrahim191420@gmail.com : Tazu Miazi : Tazu Miazi
  3. admin@www.bangladeshbartabd.com : Bangladeshbarta :
উসকানিমূলক বক্তব্য দিলে সরকার বসে থাকবে না-তথ্যমন্ত্রী - Bangladesh Barta
শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ১১:২৩ অপরাহ্ন

উসকানিমূলক বক্তব্য দিলে সরকার বসে থাকবে না-তথ্যমন্ত্রী

বাংলাদেশ বার্তা ডেক্স
  • প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৫০ বার পড়া হয়েছে

ভাস্কর্য স্থাপন নিয়ে উসকানিমূলক বক্তব্য দেওয়া হলে সরকার ব্যবস্থা নেবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।
সোমবার সচিবালয়ে সমসায়িক বিষয় নিয়ে সাংবাদিকদের সাথে আলোচনায় তথ্যমন্ত্রী এ কথা বলেন।
বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপনের বিরোধিতা করে হেফাজতে ইসলামের হুমকি এবং তার পাল্টায় সমাজের বিভিন্ন অংশ থেকে মৌলবাদীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবির বিষয়ে সরকার কি পদক্ষেপ নেবে প্রশ্ন করেন সাংবাদিকরা।জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, “এটির বিরুদ্ধে জনগণ বক্তব্য দিয়েছে এবং এ ধরণের উসকামূলক বক্তব্য ক্রমাগতভাবে দিতে থাকলে সরকার নিশ্চয়ই বসে থাকবে না।
হেফাজতে ইসলামের আমীর জুনাইদ বাবুনগরী গত শুক্রবার হাটহাজারীতে এক মাহফিল থেকে হুমকি দেন, যে কোনো দল ভাস্কর্য বসালে তা ‘টেনে হিঁচড়ে ফেলে দেওয়া হবে’, কেননা তার ভাষায়, তার ‘আব্বার’ ভাস্কর্যও যদি স্থাপন করা হয়, সেটা ‘শরিয়ত সম্মত হবে না’।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, “আমাদের দেশে বহু বছর আছে থেকে বিভিন্ন জনের ভাস্কর্য আছে তখন কেউ প্রশ্ন তুলেননি। এখন এটি নিয়ে প্রশ্ন করা মানে জনগণকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা।
তথ্য-উপাত্ত ছাড়া অনলাইন সংবাদ মাধ্যমের বিষয়ে ব্যবস্থা
‘অনলাইন সংবাদমাধ্যম’ নিবন্ধন প্রক্রিয়ায় আবেদনকারীদের মধ্যে যাদের তথ্য উপাত্ত পাওয়া যায়নি সেগুলোর ব্যাপারে খুব শিগগিরই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানান তথ্যমন্ত্রী।
সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন,“অনলাইন রেজিস্ট্রেশন একটি প্রক্রিয়ায় করা হচ্ছে, সরকারের বিভিন্ন সংস্থার পক্ষ থেকে যে সব তথ্য-উপাত্ত দেওয়া হয়েছে, সেগুলোর ভিত্তিতে যেগুলো রেজিস্ট্রেশনের জন্য যোগ্য বিবেচিত তাদের নাম ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হচ্ছে।”
সব মিলিয়ে তিন দফায় এ পর্যন্ত ১৭৭টি সংবাদমাধ্যমকে ‘অনলাইন সংবাদমাধ্যম’ হিসেবে নিবন্ধনের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, “অনেকগুলোর অনলাইনের ক্ষেত্রে দেখা গেছে তারা যেসব তথ্য উপাত্ত দিয়েছে সেটি সঠিক নয়। অনেকগুলোর ক্ষেত্রে অফিসের ঠিকানায় অফিস পাওয়া যায়নি, আবার যে ওয়েবসাইট ডোমেইল দেওয়া হয়েছে সেগুলো চালু থাকে না সেগুলোর যোগ্য বিবেচিত হয়েনি। যোগ্যদের ধারাবাহিকভাবে তালিকা প্রকাশ করা হচ্ছে।”
দ্বিতীয় দফায় দেশের প্রায় প্রতিষ্ঠিত সবগুলো অনলাইন এ তালিকায় আছে জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, “কিছু কিছু হয়ত বাদ আছে। তবে এটি অব্যাহত থাকবে কারণ এটি চলমান প্রক্রিয়া। যে সমস্ত অনলাইনের ব্যাপারে তথ্য উপাত্ত পাওয়া যায়নি সেগুলোর ব্যাপারে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে খুব শিগগিরই।”
আগামীতে অনলাইন সংবাদপত্র করতে হলে অনুমতি নিতে হবে জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, “এ প্রক্রিয়া শেষ করার পর অর্থাৎ যারা আবেদন করেছেন তাদের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করার পর কেউ অনলাইন প্রকাশ করতে হলে সরকারের অনুমতি নিতে হবে।”
যারা এখনো নিবন্ধন পায়নি তাদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, “আরো কিছু দিন পর যাচাই করে আরো কিছু দেওয়া হবে বা ছাড়পত্র দেব এ নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই।“

সংবাদটি শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন,

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত  দৈনিক বাংলাদেশ বার্তা  ২০২০-২১
এই ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও ব্যবহার বেআইনি

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট